Emotion Recognition - CSLiT | Connecting Technology

Emotion Recognition

একেক মানুষ একেক রকমভাবে মনের ভাব প্রকাশ করে থাকে। ভিন্ন ভিন্ন ভাব প্রকাশের ক্ষেত্রে ভিন্ন ভিন্ন মুখের অভিব্যক্তি দেখা যায়। তবে কেমন হবে যদি আপনার মুখের অভিব্যক্তি সফটওয়্যার বুঝতে পারে। এবার জার্মানির গবেষণা প্রতিষ্ঠান ফ্রাউনহফার ইনস্টিটিউটের বিজ্ঞানীরা নতুন ধরণের প্রযুক্তিটি নিয়ে কাজ করে যাচ্ছে।
ফ্রাউনহফার ইনস্টিটিউটের ইয়েন্স গারবাস বলেন, মুখের অনেক অভিব্যক্তি দেখে আবেগ বোঝা যায়। আবার একই আবেগ প্রকাশ করতে গিয়ে একেকজনের মুখের অভিব্যক্তি একেক রকম হয়। যেমন- পেশির নড়াচড়া, হাসি, রাগ ও দুঃখ ইত্যাদি। মানুষ হিসাবে আমি মুখ দেখে যতটা আবেগ বুঝতে পারি, সেটি সফটওয়্যারকেও শেখানো যেতে পারে এবং এক্ষেত্রে সফলতার হার অনেক বেশি। তাই ফ্রাউনহফার ইনস্টিটিউটের গবেষকরা এসব ইমোশন বুঝার জন্য Artificial Intelligent ব্যবহার করে সফটওয়্যার তৈরি করার চেষ্টা করে যাচ্ছে।
গারবাস আরো বলেন, ‘এ প্রযুক্তি ব্যবহার করে রোবটের মাধ্যমে সোশ্যাল সিগন্যাল ও মানুষের ইমোশন সম্পর্কে অটিস্টিক শিশুদের প্রশিক্ষণ দেওয়া যাবে। এছাড়াও গাড়ি চালানোর সময় এটিকে ব্যবহার করে চালকের মানসিক অবস্থা কিংবা তিনি চাপে আছেন কিনা বা কোনো কিছু নিয়ে অন্যমনস্ক হয়ে আছেন কিনা- তা বোঝা যাবে।’
মানুষকে নিয়ন্ত্রণে রাখার উদ্দেশ্যে বর্তমানে চীনে ব্যাপকভাবে ফেসিয়াল রিকগনিশন প্রযুক্তির ব্যবহার করা হচ্ছে। ফেস রিকগনিশনের মতো ইমোশন রিকগনিশন প্রযুক্তি দিয়েও মানুষের উপর নজর রাখা বা তাকে নিয়ন্ত্রণ করা যেতে পারে।

Share This:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *